Sunday, 22 April, 2018 | ৯ বৈশাখ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ |

Advertisement

আর কী করলে ম্যাচ সেরার পুরস্কার পেতেন সাকিব?

দৈনিকসিলেটডেস্ক: একটি ২০ ওভারের ম্যাচ। প্রতিপক্ষ ১৩৯ রানেই শেষ। সেই ম্যাচে কোনো বোলারের বোলিং ফিগার চার ওভারে ২১ রান দিয়ে দুই উইকেট। ব্যাট হাতে ২১ বলে ২৭ রান। দুটি দুর্দান্ত ক্যাচ। তবু তার হাতে ওঠেনি ম্যাচ সেরার পুরস্কার।

অলরাউন্ডার এই ক্রিকেটারের নাম সাকিব আল হাসান। স্বভাবতই প্রশ্ন উঠেছে, আর কী করলে সেই পুরস্কার পেতেন তিনি?

শনিবার কলকাতার ইডেন গার্ডেন্সে ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগের (আইপিএল) দশম ম্যাচে স্বাগতিকদের মুখোমুখি হয়েছিল সানরাইজার্স হায়দরাবাদ। এই কলকাতাই সাত বছর পর এবার ছেড়েছে বিশ্বের অন্যতম সেরা অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসানকে। প্রথমবারের মতো তাকে দলে ভিড়িয়েছে হায়দরাবাদ। আইপিএলের একাদশ আসরের প্রথমবার পুরনো দল কলকাতার মুখোমুখি হয়েই দারুণ পাফরম্যান্স করেন সাকিব।

চার ওভার বল করে মাত্র একটি চার হজম করতে হয়েছে সাকিবকে। ২৪ বলের মধ্যে ১১টিই দিয়েছেন ডট। তবু তিনি ম্যাচ সেরার বিবেচনায় নেই। তার পরিবর্তে এই পুরস্কার পেয়েছেন তার সতীর্থ বিলি স্ট্যানলেক। যার বোলিং ফিগারও চার ওভারে ২১ রান দিয়ে দুই উইকেট। তবে সাকিবের থেকে মাত্র চারটি ডট বেশি দিয়েছেন তিনি।

এটাই কি তার ম্যাচসেরা হওয়ার কারণ? ব্যাট হাতে তো নামেনই তিনি। ম্যাচে হায়দরাবাদের ৫ উইকেটের জয়ে সাকিবের অবদান ২১ বলে ২৭। দলের হয়ে দ্বিতীয় সর্বোচ্চ স্কোর এটাই।

শনিবারের ম্যাচে পারফরম্যান্স দিয়ে দারুণ এক অর্জনের তালিকায়ও নাম উঠেছে সাকিবের। আইপিএলের ইতিহাসে মাত্র সপ্তম ক্রিকেটার হিসেবে এক ম্যাচে বল হাতে দুই উইকেট শিকারের সাথে দুই ক্যাচ এবং ব্যাটিংয়ে ২৫-এর চেয়ে বেশি (২৭) রান করার গৌরব অর্জন করেন সাকিব। ৩১ বছর বয়সী এ অলরাউন্ডারের আগে আইপিএলে তাক লাগিয়ে দিয়ে এমন অলরাউন্ড পারফরম্যান্স করার গৌরব অর্জন করেছেন সৌরভ গাঙ্গুলি, সুরেশ রায়না, রবীন্দ্র জাদেজা, জেপি ডুমিনি, আন্দ্রে রাসেল ও ইংলিশ অলরাউন্ডার বেন স্টোকস।

ক্রিকেটবিষয়ক ওয়েবসাইট ইএসপিএন ক্রিকইনফোও তাদের প্রতিবেদনের শিরোনামে লিখেছে, ‘সাবেক নাইট রাইডার সাকিবের নেতৃত্বে কলকাতায় সানরাইজার্সের প্রথম জয়।’

সমান সংখ্যক উইকেট পেয়েছেন সাকিব ও স্ট্যানলেক। রানের দিক থেকে এগিয়ে আছেন সাকিব। এছাড়া দারুণ দুই ক্যাচ নিয়েও পারলেন না স্ট্যানলেকের সাথে। আইপিএলের এমন ‘বিমাতাসুলভ’ আচরণে সমালোচনার ঝড় উঠেছে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকেও।

অনুপম হোসেন নামে একজন লিখেছেন, ‘সাকিব ২উইকেট পেয়েছে, ২ক্যাচ নিয়েছে, ২টি চার মেরেছে, দলের প্রথম ৬ মেরেছে, কিন্তু কেকেআরকে জেতাতে পারেনি। তাই ম্যান অফ দ্যা ম্যাচও হয়নি।’

মস্তোফা সজল নামে একজন লিখেছেন, ‘তুমি কি মজা করছো, ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগ!’

ফাহিম রহমান সাকিবের পারফরম্যান্সে স্ট্যাটিস্টিক্স তুলে ধরে জানতে চেয়েছেন, ‘আর কী কী করলে ম্যাচ সেরা হতেন সাকিব?’

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
দৈনিক সিলেট ডট কম
২০১১

সম্পাদক: মুহিত চৌধুরী
অফিস: ২৬-২৭ হক সুপার মার্কেট, জিন্দাবাজার সিলেট
মোবাইল : ০১৭১ ২২ ৪৭ ৯০০,  Email: dainiksylhet@gmail.com

Developed by: