12

Thursday, 23 February, 2017 | ১১ ফাল্গুন ১৪২৩ বঙ্গাব্দ |
সংবাদ শিরোনাম
সুস্থ খাদিজা এখন বাড়ি ফেরার অপেক্ষায়  » «   বিএনপি সন্ত্রাসী সংগঠন: কানাডার আদালত  » «   ডিজিটালের ছোয়া লাগেনি সিলেট সাবরেজিস্ট্রি অফিসে  » «   নিরাপত্তা হেফাজতে সিলেটের আবিদা  » «   বাংলাদেশ উন্নতির মহাসড়কে এগিয়ে চলেছে:অর্থমন্ত্রী  » «   নিবন্ধন নিয়ে সিলেটে বনপার জরুরী সভা  » «   সৌদি থেকে ফিরলেন নবীগঞ্জের সেই ‘গৃহকর্মী’  » «   বিআরটিএ অফিসে দুদক আতঙ্ক!  » «   যুক্তরাষ্ট্রে যেতে দেওয়া হলো না বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত ব্রিটিশ নাগরিককে  » «   সিলেটে দশদিনব্যাপী বেঙ্গল সংস্কৃতি উৎসব শুরু হচ্ছে আজ  » «   চুরি হতে পারে আপনার আঙুলের ছাপ!  » «   এ কেমন শ্রদ্ধা?  » «   আরিফুল হক চৌধুরীকে নিয়ে সিসিক কাউন্সিলরদের শ্রদ্ধা নিবেদন  » «   কেন্দ্রীয় শহিদ মিনারে সিলেট অনলাইন প্রেসক্লাবের শ্রদ্ধা জ্ঞাপন  » «   বিনম্র শ্রদ্ধা ও ভালবাসায় সিলেট কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে মানুষের ঢল  » «  





তান্ত্রিক ম্যাসাজের নামে ধর্ষণ!

q1ভারতের গোয়া। সেখানকার উপকূলীয় এলাকা পারনেমের কাছেই একটি প্রত্যন্ত গ্রাম কোরগাঁও। সেখানে ‘তান্ত্রিক’ ম্যাসাজ করাতে গিয়েছিলেন যুক্তরাষ্ট্রের এক নারী। এ সময় তাকে ম্যাসাজ দিতে গিয়ে যুবক এক যোগব্যায়ামের শিক্ষক তাকে ধর্ষণ করেছে বলে অভিযোগ করা হয়েছে। এ অভিযোগে পারনেম পুলিশ বুধবার গ্রেপ্তার করেছে ওই শিক্ষককে। এ খবর দিয়েছে অনলাইন টাইমস অব ইন্ডিয়া। এতে বলা হয়েছে, যুক্তরাষ্ট্রের ওই নারী মঙ্গলবার পুলিশের কাছে মামলা করেছেন। এতে তিনি বলেছেন, যোগব্যায়ামের শিক্ষক প্রতীক কুমার আগরওয়াল (৩৮) তাকে তান্ত্রিক ম্যাসাজ দেয়ার নাম করে গত ২রা ফেব্রুয়ারি ধর্ষণ করেছে । যুক্তরাষ্ট্রের ওই ‘ধর্ষিতা’ তার অভিযোগে বলেছেন, প্রতীক শুধু তাকেই নয়, কানাডার এক নারীকেও ধর্ষণ করেছে। এ বিষয়ে পুলিশ কর্মকর্তারা বলছেন, ৭ দিনের যোগব্যায়ামের প্রশিক্ষণ নিতে গত ৩১শে জানুয়ারি গোয়া যান ওই নারী পর্যটক। ওয়েবসাইটে বিজ্ঞাপন দেখে তিনি এতে উদ্বুদ্ধ হয়েছেন এবং অনলাইনেই নিবন্ধিত হয়েছেন। এ প্রশিক্ষণ কোর্সের শর্তে বলা হয়েছে প্রশিক্ষণার্থীদেরকে অবশ্যই আশ্রমে থাকতে হবে এবং খাবার খেতে হবে। তাই অন্যান্য দেশের ৭ জন নাগরিকের সঙ্গে যুক্তরাষ্ট্রের ওই নারী গোয়া চলে যান।

সংবাদটি শেয়ার করুন:

Developed by: